কলকাতাখবররাজ্য

রোবট বানিয়ে তাক লাগালেন হাওড়ার অতনু, পথ চেয়ে সরকারি সাহায্যের

“শিল্প চাই, শিল্প চাই” বর্তমানে হাহাকার রব পশ্চিমবঙ্গে। এই শিল্পের বার্তা নিয়েই মিরাক্কেল ঘটাতে চলেছেন হাওড়ার অতনু ঘোষ। তিনি বিগত কয়েক মাস ধরে অক্লান্ত পরিশ্রম করে বানিয়ে ফেলেছেন আস্ত একটি মানব যন্ত্র। এই মানব যন্ত্রের নাম দিয়েছেন তিনি ‘কীর্তি’। শুধু অতনু ঘোষ একা নন, তার সঙ্গে সহযোগী যারা রয়েছেন তারা হলেন তাপস রায়, হিমাংশ চক্রবর্তী সহ অন্যান্যরা।

প্রস্তুতকারকের মতে, কীর্তি করতে পারে ডাক্তারদের সাহায্য। কোভিড মহামারির  মুহূর্তে রোগীদের কাছে প্রয়োজনীয় চিকিৎসা পৌঁছে দিতে ডাক্তারদের সহযোগী হিসাবে কৃতী কাজ করতে পারে। এছাড়াও, কীর্তিকে দিয়ে আগুন নেভানোর কাজ, জঙ্গলে লুকিয়ে থাকা দুষ্কৃতীদের হামলার কাজ-সহ এডুকেশনাল বেশ কিছু কাজে ব্যবহৃত হতে পারে।

তবে অতনু ঘোষ এই প্রথম মানব যন্ত্র তৈরি করলেন তা নয়, তিনি ১৯৭৯ সালেও একটি রোবট তৈরি করেছিল । শুধু তাই নয় ১৯৭৬ সালে গাড়ির গতি মাপার বিশেষ যন্ত্র তৈরি করে সারাদেশে বিজ্ঞান প্রদর্শনী সেমিনারে অংশগ্রহণ করেছিলেন। সেখানে তার সেই আবিষ্কার দেখে তৎকালীন দেশের প্রধানমন্ত্রী ইন্দিরা গান্ধী তাকে দিল্লির বাসভবনে ডেকে পাঠিয়েছিলেন।

তবে কীর্তিকে আরো অত্যাধুনিক করতে গেলে যা যা যন্ত্রের প্রয়োজন তা যথেষ্ট ব্যয়বহুল। তাই সরকারি সাহায্য পেলে তিনি তা করতে পারবেন আশা অতনুবাবুর। আপাতত ‘কীর্তি’ অতনু বাবুর বাড়ির ছাদে তার রিমোট কন্ট্রোলে ডান দিক থেকে বাঁ দিক অথবা বাঁদিক থেকে ডান দিক অনায়াসে যাতায়াত করছে সর্বত্র । এই রোবট দেখতে এখন হাওড়ায় প্রতিদিন প্রচুর ভিড় হচ্ছে অতনু ঘোষের বাড়িতে।

ভালোবাসার পক্ষে থাকুন, নিবিড়-এর সঙ্গে থাকুন

About author

Articles

সমাজ ও সংস্কৃতির বাংলা আন্তর্জাল পত্রিকা ‘নিবিড়’। বহুস্বর এবং জনগণের সক্রিয়তা আমাদের রাজনৈতিক অবস্থান।
নিবিড় ডেস্ক
Related posts
কলকাতাখবররাজ্য

দুই বছর পর কলেজ স্কোয়ারে আজ থেকে শুরু দশম বাংলাদেশ বইমেলা

পশ্চিমবঙ্গের কলকাতায় শুক্রবার থেকে শুরু হচ্ছে ‘দশম বাংলাদেশ বইমেলা-২০২২’। ১০ দিনব্যাপী এ বইমেলা প্রথমবারের মতো অনুষ্ঠিত হবে কলকাতার কলেজ স্কোয়ার চত্বরে। এবারের বাংলাদেশ বইমেলা উৎসর্গ করা হয়েছে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্মৃতির উদ্দেশে।…
Read more
মনন-অনুধাবনরবিবারের কলম

ফিরে দেখা: সিঙ্গুর-নন্দীগ্রামের রাষ্ট্রীয় সন্ত্রাস

বুদ্ধবাবুর রাজত্বকালে রাষ্ট্রীয় অত্যাচারের চরম নিদর্শন হয়ে ওঠে সিঙ্গুর-নন্দীগ্রাম। দুঃখের হলেও সত্য যে, সরকারের সঙ্গে হাত মিলিয়ছে টাটা-সালেমরাও। দুঃখ এই জন্য নয় যে, তারা হাত এগিয়ে দিয়েছে। দুঃখ এই জন্য যে এক বাম আদর্শে বিশ্বাসী…
Read more
মনন-অনুধাবনরবিবারের কলম

মরিচঝাঁপি – খরচের খাতায় থাকা মানুষেরা

সে এক মহা দুঃখের কাহিনি। দণ্ডকারণ্য থেকে দলে দলে যাদের পুনর্বাসন দেওয়া হয়েছিল সেখানে তারা আসতে শুরু করেছে। ওরা সুযোগ পেলেই (কেউ কেউ পায়ও) নেমে পড়ে পশ্চিমবঙ্গের নানা স্থানে। সাধারণ মানুষ কেউ মেয়ে দেখে, কেউ…
Read more

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *